পরীক্ষামূলক সম্প্রচার চলছে...
মঙ্গলবার, জুন ১৮, ২০২৪

আওয়ামী লীগের চূড়ান্ত প্রার্থীদের নাম ঘোষণা আজ

ছয় দফা নিউজ ডেস্ক:
দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়নপ্রত্যাশীদের তালিকা প্রকাশের সময় জানা গেছে। আজ রবিবার (২৬ নভেম্বর) বিকাল ৪টার কিছু পরে মনোনয়নপ্রাপ্তদের চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ করতে যাচ্ছে দলটি। নানা রকম জল্পনা-কল্পনা অবসান ঘটিয়ে ৩ হাজার ৩৬২ জনের মধ্যে ৩০০ জন নৌকার প্রার্থীর নাম জানা যাবে।

এর আগে শুক্রবার (২৪ নভেম্বর) সন্ধ্যায় আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়ার সই করা এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, আজ সকাল ১০টার দিকে দলীয় ও সংসদীয় মনোনয়ন বোর্ডের সভাপতি শেখ হাসিনার সরকারি বাসভবন গণভবনে একটি সভা অনুষ্ঠিত হবে। এসময় সব মনোনয়নপ্রত্যাশীর সঙ্গে মতবিনিময় করবেন দলীয় সভানেত্রী শেখ হাসিনা। দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষ্যে গত ১৮ থেকে ২১ নভেম্বর পর্যন্ত চার দিন আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন ৩ হাজার ৩৬২ জন মনোনয়ন প্রত্যাশী। মনোনয়ন ফরম বিক্রি করে দলটির আয় হয়েছে ১৬ কোটি ৮১ লাখ টাকা।

নির্বাচন কমিশনের ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী, নির্বাচনে প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন ৩০ নভেম্বর, মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই হবে ১ থেকে ৪ ডিসেম্বর, মনোনয়ন আপিল ও নিষ্পত্তি ৬ থেকে ১৫ ডিসেম্বর, প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ১৭ ডিসেম্বর, প্রতীক বরাদ্দ ১৮ ডিসেম্বর এবং নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণা ১৮ ডিসেম্বর থেকে ৫ জানুয়ারি সকাল ৮টা পর্যন্ত।

দলটির সংশ্লিষ্ট সূত্র থেকে জানা গেছে, আওয়ামী লীগের মনোনয়নপত্র বিতরণ শুরুর পর থেকেই মনোনয়নপ্রত্যাশীরা ঢাকায়ই অবস্থান করছেন। তাদের অনেকেই প্রার্থী তালিকা চূড়ান্ত হওয়ার পর এলাকায় যাবেন। মনোনয়নপ্রত্যাশীরা এখন ভিড় করছেন কেন্দ্রীয় নেতাদের বাসা ও কার্যালয়ে। বিশেষ করে মনোনয়ন বোর্ডে আছেন এমন নেতাদের কাছে ভিড় করছেন তারা।

তবে প্রতিটি নির্বাচনেই নতুন প্রার্থীদের প্রাধান্য দেয় দলটি। সর্বশেষ গত ২০১৮ সালের একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও তার আগের সংসদের ৫৬ জন এমপি দলীয় মনোনয়ন পাননি। আবার ২০১৪ সালের নির্বাচনে তার আগের সংসদের ৪৯ জনকে মনোনয়ন দেয়া হয়নি। এবারে মনোনয়নের ক্ষেত্রে জনসম্পৃক্ততাকে গুরুত্ব দিচ্ছে ক্ষমতাসীনরা।

দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরও গত শনিবার বিষয়টি নিয়ে কথা বলেছেন। তিনি বলেন, ‘যাদের বাদ দেয়া হয়েছে তারা ইলেক্টেবল না, উইনেবল না। জনগণের কাছে গ্রহণযোগ্যতা হারিয়েছে। জনগণের কাছে যাদের গ্রহণযোগ্যতা নেই তাদের আমরা মনোনয়ন দিচ্ছি না। নির্বাচনে জিততে পারবে, সেটা পুরুষ হোক আর নারী হোক—এমন ব্যক্তিদের আমরা মনোনয়ন দেব।’

জোট-মহাজোটের জটিল সমীকরণে অনেকের মনোনয়ন ঝুঁকিতে রয়েছে। এছাড়া বিভিন্ন জরিপে যাদের বিষয়ে নেতিবাচক তথ্য এসেছে, তারা বর্তমানে এমপি বা মন্ত্রী হলেও আসন্ন নির্বাচনে মনোনয়ন দেওয়া হচ্ছে না তাদের।

আরো পড়ুন

মতামত দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সর্বশেষ সংবাদসমূহ

বিশেষ সংবাদ